“আজানের সুমধুর ধ্বনি” ডাঃ মোঃ মাহ্ফুজ্জামান (দীপ)

0
164

“আজানের সুমধুর ধ্বনি”
ডাঃ মোঃ মাহ্ফুজ্জামান (দীপ)
================================
জীবনে সফল হওয়ার অন্ধ মোহে পড়ে,
মুয়াজ্জিনের কন্ঠে শুনিয়াও আজানের ধ্বনি,
হয়নি তো যাওয়া কভু মসজিদ পানে।
বিনিময়ে আজ হারিয়েছি আমি অনেক কিছু,
সুখ-শান্তি আর জীবনের মর্ম-বাণী।

ঘুম ঘুম চোখ,তবুও আস‌ছে না কেন এখনো ঘুম?
চেতনে অচেতন হয়ে আছি জেগে একা আমি।
হঠাৎ কানে ভেসে আসিলো আজানের সুমধুর ধ্বনি।

মুয়াজ্জিনের কন্ঠে শুনিয়া আজানের ধ্বনি।
কেন জানি আজ আকূল হইলো আমার অবুঝ প্রাণ।
কেন আজ আনন্দে নাচিয়া উঠিল আমার ধমনী?
কী মধূর সেই আজানের ধ্বনি!!

ভাবছি কে মোরে আজ সত্যি শুনাইল
আজানের ঐ সুমধুর ধ্বনি!
মর্মে মর্মে সেই সুর, এখনো বাজিতেছে,
সে যে কি সুমধূর!

শুনিয়া আজ আজানের ধ্বনি,
কাঁপছে আমার বুক দুরূ দুরূ।
লাগছে যেনো সবকিছুই আজ উড়ু উড়ু!
চারদিকে দেখছি শুধু ধু ধু মরু।
নেই তো কোথাও শীতল ছায়া তরু!

কে যেনো ডাকিয়া কহিল চলো বন্ধু!
শুনিয়া এ কথা শুধাইলাম আমি তারে,
কোথায় যাব বন্ধু এখন তাহলে?

প্রত্যুত্তরে বন্ধু চুপিচুপি কহিল কানে।
আজানের ধ্বনি শুনিয়াও তুমি কেমনে বসে আছো ঘরে?
নির্বাক আমি, নির্বোধ আমি!
উত্তর দিব আজ তারে আমি কোন সাহসে,কেমন করে?

জানি একদিন নিস্তব্ধ হয়ে যাবে চারদিকে পাখিদের গান,
থেমে যাবে আমার জীবনের সব কোলাহল।
পরে রবে শুধু রক্ত নিংড়ানো এই নিথর বডি।
বাবা-মার দেয়া সুন্দর নামটির ঘটবে সেদিন পরিসমাপ্তি।

তখন আমি হয়ে যাব জিন্দা থেকে লাশ!
শুনতেও পাবো না আর মুয়াজ্জিনের সুমধুর আজান!!
ভাবিতেই যেনো আসিতেছে গায়ে শিহরণ।

ভাবছি একাকি নিরালয়ে,এ’কথা কয়জনে আমরা বুঝি?

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here