সুন্দর সময়ে ‘নিরব’

0
109
সুন্দর সময়ে 'নিরব'

আফজালুর ফেরদৌস রুমনঃ চলচ্চিত্রের এই দুঃসময়ে ঢাকাই সিনেমা ইন্ডাস্ট্রিতে যে কয়জন নায়ক এই সময়ে এসেও মোটামুটি নিয়মিতভাবেই আমাদের সিনেমায় কাজ করে যাচ্ছেন তাদের মধ্যে অন্যতম একটি নাম নিরব হোসেন।

গতবছর ‘আব্বাস’ সিনেমা দিয়ে নতুনভাবে আলোচনায় আসা এই অভিনেতা এখন কাজ করছেন বেশ বুঝেশুনে। বদলে যাওয়া দর্শকদের রুচি, চাহিদার দিকে লক্ষ্য রেখে এবং কনটেন্ট নির্ভর চলচ্চিত্রে অভিনয় করার সিদ্ধান্ত তাকে এই সময়ে এসে নতুন করে আস্থাশীল একজন অভিনেতা হিসেবে পরিনত করেছে।

কিছুদিন আগে কলকাতার জনপ্রিয় অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা সরকারের সাথে ‘হৃদয় জুড়ে’ সিনেমায় দেখা গেছে। সিনেমাটিতে তার অভিনয় এবং প্রিয়াঙ্কার সাথে তার জুটি বেশ প্রশংসা লাভ করেছে। সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তার আগামী সিনেমা ‘তিতুমীর’ এর ফার্ষ্টলুক পোষ্টার রিলিজ দেয়া হয়েছে। এই পোষ্টার রিলিজ পাবার পর থেকেই সাধারন দর্শক এবং সহকর্মীদের কাছ থেকে প্রশংসা পাচ্ছেন তিনি। মাথায় লাল পাগড়ি, গায়ে পাঞ্জাবি, ভিন্নরকম কটি এবং হাতে প্রায় ২০০ বছর আগেরকার সময়ের একটি রাইফেল। সবমিলিয়ে ঐতিহাসিক একটি প্রেক্ষাপটে যেন হঠাৎ করেই আমাদের সামনে নিয়ে হাজির হলেন নিরব।

ব্রিটিশবিরোধী আন্দোলনের অন্যতম বাঙালি বিপ্লবী বীর তিতুমীরের চরিত্রে দেখা যাবে নিরবকে। ব্রিটিশদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করতে যেয়ে ‘বাঁশের কেল্লা’ তৈরি করে বিখ্যাত হয়েছিলেন তিতুমীর। ব্রিটিশ সৈন্যদের সঙ্গে যুদ্ধরত অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন বীর এই যোদ্ধা।

এরকম একটি ঐতিহাসিক চরিত্রে অভিনয় করতে যেয়ে নিজের প্রস্তুতি নিয়ে নিরব জানালেন, এ ধরনের চরিত্রে অভিনয় করা আমার জন্য অসাধারণ ঘটনা। ইতিহাসের অংশ হতে পারার একটা আনন্দ আছে। একই সঙ্গে কিছুটা ভয়ও কাজ করছে, কারণ এ রকম একটি ঐতিহাসিক চরিত্র পর্দায় ফুটিয়ে তোলা বেশ কঠিন একটা ব্যাপার। আসলে এই চরিত্র কতটা ফুটিয়ে তুলতে পারব সেটা নিয়ে একটু টেনশনই কাজ করছে। কিন্তু যেহেতু নিজেকে প্রস্তুত করার জন্য আপ্রাণ চেষ্টা করছি সে ক্ষেত্রে বলতে পারি আটঘাট বেঁধেই কাজটা করব। আর আত্মবিশ্বাসী না হয়ে কাজ করলে কাজটা ভালো হবে না। ২০০ বছর আগের সেই প্রেক্ষাপট এই সময়ে এসে কাজ কাজ করাটা সত্যিই অনেক কঠিন। তিতুমীরের বিপ্লবী জীবনের নানা গল্প এই সিনেমায় তুলে ধরা হবে। ফলে সেভাবেই নিজেকে গড়ে তোলার চেষ্টা করছি।

সবকিছু ঠিক থাকলে আগামী এপ্রিল, জুন ও জুলাইতে সিনেমাটির শুটিং হবার কথা রয়েছে। ঢাকা ও কলকাতা মিলিয়ে শুটিংয়ের পরিকল্পনা রয়েছে পরিচালক ডায়েল রহমানের। ‘তিতুমীর’ সিনেমার চিত্রনাট্য করছেন আবদুল্লাহ জহির বাবু।

‘তিতুমীর’ সিনেমার শ্যুটিং শুরু করার আগেই শেষ করেছেন এই সময়ের আলোচিত এবং দক্ষ পরিচালক সৈকত নাসিরের ‘ক্যাসিনো’। এই সিনেমায় চিত্রনায়িকা বুবলীর বিপরীতে অভিনয় করছেন নিরব। সাম্প্রতিককালে আলোচিত ক্যাসিনো ঘটনা নিয়েই এই সিনেমার গল্প এগিয়ে যাবে। ‘ক্যাসিনো’ সিনেমা নিয়েও বেশ আশাবাদী নিরব। এছাড়া কাজ শেষ করেছেন বুলবুল জিলানীর পরিচালনায় ‘রৌদ্রছায়া’ সিনেমার। এই সিনেমার তার জুটি হিসেবে আছেন আইরিন। আরেকটি আলোচিত সিনেমা ‘অফিসার রিটার্নস’এর ডাবিং শুরু হচ্ছে আগামী সপ্তাহে। তাই এককথায় বলা যায় সিনেমা নিয়েই ব্যস্ততায় সময় পার করছেন এই আলোচিত অভিনেতা।

নিরব জানান, প্রতিটা সিনেমাতেই আমাকে ভিন্ন লুকে, ভিন্ন চরিত্রে দেখতে পাবেন দর্শকেরা। আমার মুক্তি প্রতীক্ষিত একটি সিনেমার সাথে অন্যটির গল্পের কোন মিল নাই। একঘেয়ে বা একই ঘরানার নায়ক হিসেবে কাজ করতে চাচ্ছিনা এই সময়ে। সব ধরনের চরিত্রে নিজের মেধা, দক্ষতা আর কাজের প্রতি ভালোবাসা দিয়ে নিজেকে মানিয়ে নেবার চেস্টা করে যাচ্ছি অনবরত। আমার এই পরিশ্রমটা যদি দর্শকদের কাছে সমাদৃত হয় তবে এতেই আমার স্বার্থকতা।

হল বন্ধ হয়ে যাওয়া, সিনেমার দর্শক কমে যাওয়ার সাথে সাথে সিনেমার সংখ্যাও কমছে ঢাকাই চলচ্চিত্র মাধ্যমে। এই দুঃসময়ে সবাইকে কাজ করে যেতে হবে কাধে কাধ মিলিয়ে এমনটাই বললেন এই আলোচিত অভিনেতা। দর্শকদের হলে ফিরিয়ে আনার জন্য ভিন্নধর্মী কনটেন্ট এর কোনো বিকল্প নাই এটা যেমন সত্য তেমনি গল্পের সাথে মিল রেখে শিল্পীদের অভিনয়, মেকিংয়ে মুন্সিয়ানা, মনে রাখার মতো সংলাপ, গল্পের সাথে মিল রেখে লোকেশন বা সেট নির্ধারন, শ্রুতিমধুর সংগীত সবকিছুর মিশেলে একটি ভালো সিনেমা নির্মিত হয়। এই সময়ের নবীন এবং দক্ষ নির্মাতা, চিত্রনাট্যকার, অভিনেতা, অভিনেত্রী সহ সকল কলাকুশলী মিলে চলচ্চিত্রের সংকট কাটিয়ে সূচনা করবেন এক নতুন সফল সময়ের এই কামনা রইলো।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here